বুধবার, ২৬ Jun ২০২৪, ০৩:০৭ পূর্বাহ্ন

সর্বশেষ সংবাদ :
সরকার আপনাদের পাশে আছে, আমরা আপনাদের খোঁজখবর নিচ্ছি- জেলা প্রশাসক জাহেদুর রহমান কাউখালীতে প্রান্তিক চাষীদের মাঝে সার, বীজ ও নারকেল চারা বিতরণ ভাণ্ডারিয়ায় পিকআপের ধাক্কায় ২ পথচারী নিহত, আহত ৪ সকলে মিলে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে কাজ করলে এলাকার শতভাগ উন্নয়ন করা সম্ভব- মহিউদ্দিন মহারাজ এমপি ভান্ডারিয়ায় বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল অনুষ্ঠিত মঠবাড়িয়া উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে বিজয়ী বায়জিদ কাউখালীতে মাদ্রাসার ছাত্রের আত্মহত্যা কাজল সভাপতি- নুর উদ্দিন সম্পাদক পিরোজপুর সাংবাদিক ইউনিয়নের কমিটি গঠন ভাণ্ডারিয়ায় গৃহবধূর লাশ উদ্ধার, স্বামী পলাতক ভান্ডারিয়ায় ঘূর্ণিঝড় রেমালে ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে সংসদ সদস্য মহিউদ্দিন মহারাজের খাদ্য সহয়তা বিতরণ কাউখালীতে ত্রাণ না পাওয়া মহিলা মেম্বারের পরিবারের উপর হামলা। নিহত-১ গ্রেফতার-২ কাউখালিতে ঘূর্ণিঝড় রিমেলে বিধ্বস্ত জোলাগাতি মাদ্রাসা , খোলা আকাশের নিচে পাঠদান ভান্ডারিয়ায় ঘূর্ণিঝড়ে ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে শক্তি ফাউন্ডেশনের সহায়ত প্রদান কাউখালীতে বিভিন্ন কর্মসূচির মধ্য দিয়ে শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের শাহাদত বার্ষিকী পালন করা হয় মঠবাড়িয়ায় চেয়ারম্যান পদের প্রার্থিতা বাতিলের পরও সভা : কর্মীদের বাঁশের লাঠি নিয়ে প্রস্তুতির নির্দেশ মঠবাড়িয়ার চেয়ারম্যান প্রার্থী রিয়াজের প্রার্থিতা বাতিল কাউখালীতে উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতিসহ ৪ প্রার্থী জামানত হারান কাউখালীতে উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আবু সাঈদ মিয়া পুনরায় উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত ভান্ডারিয়ায় মিরাজুল ইসলামের জন্মদিন উপলক্ষে দোয়া অনুষ্ঠান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিরুদ্ধে সকল ষড়যন্ত্র রাজপথে মোকাবেলা করতে হবে — যুবলীগ চেয়ারম্যান শেখ ফজলে শামস পরশ
ত্রিশাল আওয়ামী লীগের সভাপতি হিসাবে আনিছকে চায় নেতা- কর্মীরা

ত্রিশাল আওয়ামী লীগের সভাপতি হিসাবে আনিছকে চায় নেতা- কর্মীরা

খায়রুল আলম রফিক

জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের স্মৃতি বিজড়িত ময়মনসিংহ তথা স্বাধীন বাংলার মানচিত্রের ভূখন্ডে জন্ম নেওয়া ঐতিহ্যবাহী উপজেলা ত্রিশাল উপজেলা । এই ত্রিশাল জনপদের আওয়ামীলীগর সোনালী অর্জন পৌরসভার মেয়র আলহাজ্ব এবি এম আনিছুজ্জামান আনিছ। ত্রিশাল উপজেলা যুবলীগের দুইবারের নির্বাচিত সভাপতি এবি এম আনিছুজ্জামান আনিছ । ত্রিশালে আওয়ামীলীগের নিবেদিত প্রাণ এবি এম আনিছুজ্জামান আনিছ কঠোর পরিশ্রমের মাধ্যমে তৃণমূল আওয়ামী লীগকে সংগঠিত করে তৃনমুল আওয়ামীলীগের নেতাকর্মীদের ব্যাপক জনপ্রিয়তা ও সুনাম অর্জন করেছেন । তিনি শুধু থেমে থাকেননি পৌরসভার মেয়র হিসাবেই । ত্রিশাল আওয়ামীলীগের সকল স্তরের নেতা- কর্মীদের নিয়ে ভেবেছেন গোটা ত্রিশাল উপজেলাকে নিয়ে । ত্রিশালে আন্তর্জাতিক এয়ারপোর্ট করার জন্য মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কাছে দাবি তুলেছেন এই নেতা । জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের শাহাদাত বার্ষিকী , জেলহত্যা দিবস সহ প্রতিটি জাতীয় আওয়ামীলীগের প্রতিটি প্রোগ্রামকে জেলার সবচাইতে বড় প্রোগ্রাম এবং জনসাগম ঘটিয়ে বারবার প্রমাণিত করেছেন ত্রিশাল আওয়ামীলীগে তিনিই সর্বশক্তিশালী ভিত । সাংগঠনকে শক্তিশালী করে তৃনমূল নেতাকর্মীদের মূল্যয়নের ইতিহাস রচনা করেছেন । মমতাময়ী নেত্রীর আস্থা অর্জন করে নেত্রীর মনে জায়গা করে নিয়েছেন এবি এম আনিছুজ্জামান আনিছ এমন বিশ্বাস ত্রিশাল আওয়ামীলীগের নেতা- কর্মীদের মুখে মুখে । পৌরসভার মেয়র হিসাবেই নন, এবি এম আনিছুজ্জামান আনিছ জনসেবাতেও সর্বোচ্চ জায়গা রয়েছেন ত্রিশালে । কারো দুরারোগ্য ব্যাধি কিংবা কোনো অসহায় ব্যক্তির সন্তান স্কুলে ভর্তি হতে পারছেন না । এমন ‘দুঃখী খবর’ শুনতে দেরি, ছুটতে দেরি নেই যাঁর তিনি হলেন এবি এম আনিছুজ্জামান আনিছ । সব সময় অসহায় মানুষের সহায় আছেন বলেই ত্রিশালের সকল পর্যায়ের মানুষের কাছ থেকে উপাধি পেয়েছেন ‘গরিবের বন্ধু’। নিজের ব্যবসা-বাণিজ্যের প্রতি খুব একটা নজর নেই তাঁর। সকাল-সন্ধ্যা কেবলই ছুটে বেড়ান মানুষের কল্যাণে। খুঁজে ফিরেন অসহায় মানুষকে। গরীবদের চিকিৎসা, পানীয় জলের ব্যবস্থা, টয়লেট স্থাপন করে দিয়েছেন অনেককেই । এবিএম আনিছুজ্জামান অসহায় মানুষের পাশে সব সময় দাঁড়ান। তাঁর আয়ের বেশির ভাগ টাকা তিনি মানুষের কল্যাণে ব্যয় করেন । পাশাপাশি রাজনৈতিক তথা উপজেলা আওয়ামীলীগের প্রত্যেকটি প্রোগ্রামে যুক্ত আছেন তিনি । এবি এম আনিছুজ্জামান আনিছ ত্রিশালের সর্বস্তরের উন্নয়নমুলক কাজ করে যাচ্ছেন । সাধারণ মানুষের মধ্যে তার আকাশচুম্বি যে জনপ্রিয়তা রয়েছে বলেই তাকে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি দেখতে চায় স্থানীয় আওয়ামী লীগের কর্মীরা। প্রতিটি আন্দোলন সংগ্রামে তিনি থেকেছেন সামনের সারিতে। দিয়েছেন সফল নেতৃত্ব। দল ও জনগণের অধিকার রক্ষায় তিনি একজন নিবেদিত প্রাণ। জনবান্ধব এবং পরীক্ষিত ও লড়াকু সৈনিক। প্রচলিত রাজনৈতিক ধারায় থাকলেও লোভ লালসার গা ভাসাননি তিনি। তৃণমুল নেতাকর্মীদের সঙ্গে থেকে এখনও সাধারণ মানুষের সেবা করে যাচ্ছেন তিনি। তিনি দলীয় কর্মসূচী সফলভাবে পালনে একধাপ এগিয়ে। বিগত সালে বিএনপি-জামায়াতের ডাকা হরতাল ও অবরোধ ঠেকাতে মাঠে রেখেছেন অগ্রণী ভূমিকা। শুধু এখানেই তিনি ক্ষান্ত নন, গরীব-দুঃখী ও অসহায়দের পাশে আছেন। এছাড়াও মসজিদ-মাদ্রাসা নির্মাণে টাকা পয়সা দান করেছেন। ইতিমধ্যে তিনি জনসেবার মাধ্যমে জয় করেছেন সাধারণ মানুষের আস্থা ও ভালোবাসা। এজন্যই ত্রিশালবাসীও তাকে আগামীতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি হিসাবে দেখতে চান। স্থানীয় আওয়ামীলীগ নেতা- কর্মীরা বলেন, এবি এম আনিছুজ্জামান আনিছকে আমরা বিপদে-আপদে সবসময় কাছে পাই। মেয়রের পাশাপাশি আগামীতে তিনি ত্রিশাল উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি হলে এলাকার আরও অনেক উন্নয়ন হবে। তিনি নিজের জন্য আসেননি এসেছেন জনসেবা করতে। যার ফলে তিনি ব্যাপক জনপ্রিয়তা অর্জণে সক্ষম হয়েছেন। জনপ্রিয়তা, দলের প্রতি আস্থা, কর্মী বান্ধব নেতা ও সমাজ সেবক হিসেবে যোগ্যতার প্রমাণ দিয়েই তিনি মেয়রের দায়িত্ব গ্রহণ করেন। তিনি সভাপতি হলে ত্রিশাল আওয়ামী লীগ আরো সামনের দিকে এগিয়ে যাবে বলে মনে করেন স্থানীয় আ.লীগ ও অঙ্গসংঠনের নেতৃবৃন্দ ও তৃণমূলের কর্মীরা।

Print Friendly, PDF & Email

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন




© All rights reserved © 2019 pirojpursomoy.com
Design By Rana
error: Content is protected !!