বুধবার, ০৫ অক্টোবর ২০২২, ০৩:৩৪ অপরাহ্ন

সর্বশেষ সংবাদ :
ভান্ডারিয়ায় গাঁজা সহ নারী মাদক কারবারি গ্রেফতার Riverboat Casino Online মহাসড়কে টোল আদায় না করতে মেয়রদের নির্দেশনা নেছারাবাদের কুড়িয়ানা বাজারে অগ্নিকান্ডে ২১টি দোকান পুড়ে ভস্মীভূত : কোটি টাকার ক্ষতি কাউখালীতে বিএনপির উদ্যোগে আলোচনা সভা ও মিলাদ মাহফিল অনুষ্ঠিত উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যানের মহতি উদ্যোগ মঠবাড়িয়ায় জাতীয় পার্টির নেতাকে কুপিয়ে পা বিচ্ছিন্ন ভান্ডারিয়ায় উপজেলা শিক্ষক কর্মচারী ঐক্য জোটের কমিটি গঠন প্রায় ৩৩ কেজির ভোল মাছ, ৩ কোটি টাকা দাম হাঁকাচ্ছেন জেলে (ভিডিও) ভান্ডারিয়া উপজেলা জাতীয় পার্টি-জেপি’র পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠন কাঠালিয়ায় খাল ও প্রাতিষ্ঠানিক জলাশয়ে পোনা মাছ অবমুক্তকরণ মোটর সাইকেল দূর্ঘটনায় দাখিল পরীক্ষার্থী নিহত, আহত-১ পিরোজপুরে সদ্য উদ্বোধন হওয়া বঙ্গমাতা ফজিলাতুন্নেছা মুজিব সেতুর পিলারে বালু বোঝাই কার্গোর ধাক্কা কাউখালীতে বিশ্ব পর্যটন দিবস উপলক্ষ্যে রেলি ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত ইন্দুরকানীতে চালককে অচেতন করে ইজিবাইক ছিনতাই দূর্গাপূজা উপলক্ষে ভান্ডারিয়া থানা পুলিশের মতবিনিময় সভা কাউখালী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোছাম্মৎ খালেদা খাতুন রেখা জেলার শ্রেষ্ঠ ইউএনও নির্বাচিত হয়েছে ভান্ডারিয়ায় মাছের পোনা বিতরণ ও অবমুক্তকরণ কাউখালীতে দিনব্যাপী সমবায় ভ্রাম্যমান প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত ইন্দুরকানী সড়ক যেনো মরন ফাঁদ
নদীর পাড়ে মুঘল আমলের ‘স্বর্ণমুদ্রা’ কুড়াতে ভিড়

নদীর পাড়ে মুঘল আমলের ‘স্বর্ণমুদ্রা’ কুড়াতে ভিড়

নদীর পাড়ে খোঁড়াখুঁড়ি করলেই নাকি মিলছে স্বর্ণ ও রূপার মুদ্রা! এমন খবরে প্রবল উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়েছে ভারতের মধ্যপ্রদেশের রাজগড় জেলায়। স্থানীয় পার্বতী নদীর তীরবর্তী এলাকায় রীতিমতো তাবু খাটিয়ে বসবাস করতে শুরু করেছেন বেশ কয়েকটি গ্রামের বাসিন্দারা। নদীর পাড়ে মাটি খোঁড়ার কাজও চলছে দিনরাত। যদিও গুজবের কারণে এই ঘটনা ঘটছে বলে দাবি প্রশাসনের।

ভারতীয় গণমাধ্যম সংবাদ প্রতিদিনের খবরে বলা হয়েছে, কয়েকদিন আগে পার্বতী নদীতে মাছ ধরতে গিয়ে পাড় থেকে পুরনো কিছু মুদ্রা খুঁজে পেয়েছিলেন রাজগড় জেলার শিবপুরা ও গরুড়পুরা গ্রামের মৎস্যজীবীরা। ওই মুদ্রাগুলো মোঘল আমলের বলে জল্পনা শুরু হয়। এদিকে এই ঘটনার কথা ছড়িয়ে পড়তেই পার্বতী নদীর পাড়ে দলে দলে লোক জমে যায়। শুরু হয় নদীর পাড়ে মাটি কোপানোর কাজ। খবর পেয়ে ভোপাল শহর থেকে ১৪১ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত ওই এলাকায় আসতে শুরু করেন অন্য জেলার লোকও। এখনও সেখানে লোকজন এসে মাটি খুঁড়ে গুপ্তধন খোঁজার চেষ্টা করছেন।
রাজগড় জেলার অনেক লোকের বিশ্বাস, পার্বতী নদীর পাড়ে অবস্থিত ওই এলাকায় পুরনো কোনো গুপ্তধন রয়েছে। কয়েকজন মৎস্যজীবী তার খুবই সামান্য অংশ হাতে পেয়েছেন। যদি ঠিকঠাক জায়গার মাটি খোঁড়া হয় তাহলে প্রচুর ধনসম্পত্তি পাওয়া যাবে। তাই যত দিন যাতে ওই এলাকায় মানুষের সংখ্যা বাড়ছে। আট থেকে আশি, সকাল থেকেই সমস্ত কাজ ফেলে গুপ্তধন খোঁজার কাজ করছে।

এ প্রসঙ্গে রাজগড়ের পুলিশ সুপার প্রদীপ শর্মা বলেন, আমরা ওই এলাকার আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির যাতে কোনো অবনতি না হয় তার জন্য কড়া নজরদারি চালাচ্ছি। সাধারণ মানুষের নিরাপত্তার বিষয়টাও খেয়াল রাখা হচ্ছে। প্রাথমিকভাবে মৎস্যজীবীরা যে প্রাচীন মুদ্রাগুলো পেয়েছে সেগুলো ব্রোঞ্জের বলে জানা গেছে। কিন্তু, তারপরও মানুষ স্বর্ণ ও রূপার মুদ্রাসহ গুপ্তধনের খোঁজে মাটি খুঁড়ছে। প্রচুর ভিড় হওয়ায় করোনা সংক্রমণের আশঙ্কাও আছে।

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন










© All rights reserved © 2019 pirojpursomoy.com
Design By Rana