রবিবার, ০৩ মার্চ ২০২৪, ০৭:৩৩ অপরাহ্ন

সর্বশেষ সংবাদ :
রাষ্ট্রীয় সম্মান নিয়ে কাউখালীর বীর মুক্তিযোদ্ধা হাবিবুর রহমানের শেষ বিদায় কাউখালীতে ব্রীজ নির্মান কাজ ৫ বছরে শেষ না হওয়ায় জনগনের ভোগান্তি চরমে কাউখালীতে জাতীয় স্থানীয় সরকার দিবস উপলক্ষে শোভাযাত্রা ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত স্মার্ট জাতীয় পরিচয়পত্র উন্নত ও স্মার্ট বাংলাদেশ গড়ে তোলার একটি অংশ–মহিউদ্দিন মহারাজ (এমপি) মায়ের লাশ বাড়িতে রেখে এসএসসি পরীক্ষার হলে দুই ভাই ভান্ডারিয়ায় আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত বীর মুক্তিযোদ্ধা শাহাবুদ্দিন শাহ বাবুল মারা গেছেন পিরোজপুরে প্রতারণা মামলায় এহ্সান গ্রুপের অফিস সহকারী নাজমুল গ্রেফতার কাউখালীতে পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু কাউখালীতে উপজেলা পরিষদ নির্বাচনকে সামনে রেখে সম্ভাব্য প্রার্থীদের ব্যাপক প্রচারনা ভান্ডারিয়া বিহারী লাল মিত্র পাইলট মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের বার্ষিক ক্রীড়া নাজিরপুরে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় ২ শিক্ষার্থী নিহত কাউখালীতে উপজেলা প্রশাসন অনাবাদি জমি আবাদে আনার উদ্যোগ গ্রহণ করেছে কাউখালীতে অবৈধ জাল দিয়ে মাছ ধরার অপরাধে জেলেকে পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত কাউখালীতে অগ্নিকাণ্ডে বসতবাড়ি পুড়ে ছাই হয়ে গেছে সংসদে ইমাম-মুয়াজ্জিনের সম্মানজনক ভাতা দাবি মহিউদ্দীন মহারাজের যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের সংসদীয় স্থায়ী কমিটি সদস্য হয়েছে মহিউদ্দীন মহারাজ পিরোজপুরে উজ্জ্বল হত্যার মামলার প্রধান আসামি গ্রেপ্তার পিস্তল ঠেকিয়ে শিক্ষককে হাতুরিপেটার অভিযোগ বেবী মালেঙ্গা খ্যাত কাউখালীর ক্রিকেটার সোহাগের স্বপ্ন ছাই হয়ে যাবে অর্থাভাবে
কোটি টাকার সম্পদ চুরি, হাস্যকর জিডি

কোটি টাকার সম্পদ চুরি, হাস্যকর জিডি

খায়রুল আলম রফিক: ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নতুন বিল্ডিং এর ২,৩ ও ৭ তলা থেকে চুরি যাওয়া মালামালের কোন হদিস আজ পর্যন্ত মিলেনি। কিন্তু হাস্যকর বিষয় এই প্রায় তিন বছর পর মচিমহার সাবেক প্রধান কর্মকর্তা মুস্তাফিজুর রহমান বাদী হয়ে ময়মনসিংহ কোতোয়ালী মডেল থানায় চুরির কথা লিপিবদ্ধ করে একটি জিডি করেছেন। জিডি নং- ৫১০ তারিখ ৬/১০/২০১৮। জানা গেছে, চুরি যাওয়া মালামালের আর্থিক পরিমাণ কোটি টাকা ছাড়িয়ে যাবে। এদিকে কোতোয়ালী মডেল থানা সূত্র জানা যায়, জিডিতে চুরির মূল সূত্র উল্লেখ থাকলেও থানা পুলিশ মামলা নিবে কিন্তু জিডিতে চুরির উল্লেখ থাকলে এটা মামলা পর্যায়ে পড়ে ।

কোতোয়ালী থানার তৎকালিন ওসি মোঃ কামরুল ইসলাম সাংবাদিকদের জানিয়েছিলেন, মচিমহার এই চুরির সাথে একটি সংঘবদ্ধ চক্র জড়িত । তাদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি হওয়া প্রয়োজন। ময়মনসিংহ জেলা জজ কোর্টের বিজ্ঞ আইনজীবী এড. পীযুষ কান্তি সরকার বলেন, তিন বছর আগে মচিমহার চুরির ঘটনায় জিডি করা হাস্যকর । এটা সুনির্দিষ্ট মামলার পর্যায়ে পড়ে। জানা যায় ২০১৩ সনের জানুয়ারী মাসে ময়মনসিংহ গনপূর্ত মচিমহার ২,৩,৭ তলার সার্বিক কাজ সমাপ্ত করে মচিমহা কর্তৃপক্ষের কাছে হস্তান্তর করে দেয়। কাজ সম্পাদনের অন্যান্য ইকিউভম্যান্টের মধ্যে ছিল পুরো তিনটি তলার লাইটিং সরঞ্জামদি গ্যাস পাইপ লাইনের মূল্যবান যন্ত্রপাতি, মূলবান লাইট দামী অন্যান্য যন্ত্রপাতি ও তিনটি বিল্ডিং কক্ষের যাবতীয় ফিটিংম সরঞ্জাম । কিন্তু অদৃশ্যভাবে গনপূর্ত কর্তৃক কর্ম সম্পাদনের চূর্ড়ান্ত রিপোর্ট কর্তৃপক্ষের নিকট হস্তান্তর পরপরই এই ভয়াবহ চুরিটি সংঘটিত হয়।

মচিমহার কর্তৃপক্ষের পাশাপাশি নিরাপত্তার জন্য নিরবচ্ছিন্নভাবে কাজ করে যাচ্ছে প্রধান সিকিউরিটি কর্মকর্তা , সিকিউরিটি গার্ড, আছে ওয়ার্ড মাস্টার, ওয়ার্ড সর্দার রয়েছে,আছে পুলিশ ফাঁড়ি , আনসার বাহিনী ও চতুর্থ শ্রেণীর কর্মচারী পরিষদ কর্তুপক্ষ। এত সব বাহিনী থাকতে সরকারী একটি বিশাল হাসপাতালে এই চুরি কিভাবে সম্ভব হলো ? মূল্যবান আসবাবপত্র, যন্ত্রপাতি কিভাবে খোয়া গেল ? মচিমহার উপ-পরিচালক ডাক্তার লক্ষী নারায়নের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, তিন বছর পর আমরা জানতে পেরেছি মচিমহার নতুন বিল্ডিং এ চুরি হয়েছে। তিনি আরও জানান, পরিচালক মহোদয়ের নির্দেশ মোতাবেক থানায় জিডি করা হয়েছে।

 

 

সুত্র bd24live.com

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন




© All rights reserved © 2019 pirojpursomoy.com
Design By Rana